২৩শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সকাল ১১:৫৩

বিনোদন

মৌসুমী
চিত্রনায়িকা মৌসুমীর জন্মদিন আজ। ১৯৭৩ সালের আজকের এই দিনে জন্মগ্রহণ করেছিলেন মৌসুমী।

২০ বছর বয়সে ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মধ্য দিয়ে দেশের চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটে তাঁর। প্রথম ছবিতে তাঁর নায়ক ছিলেন সালমান শাহ। অভিনয়ের পাশাপাশি গান গাওয়া, ছবি পরিচালনা এবং প্রযোজনাও করেছেন মৌসুমী। সালমান শাহ ছাড়া ওমর সানির সঙ্গেও তাঁর জুটি জনপ্রিয় হয়েছিল। এরপর তাঁরা বিয়ে করেন। মৌসুমী ও ওমর সানির সংসারে রয়েছেন দুই সন্তান ফারদীন ও ফাইজা।
এখনো পূর্ণ উদ্যমেই কাজ করে চলেছেন মৌসুমী। দীর্ঘ অভিনয়জীবনে উপহার দিয়েছেন অনেক ব্যবসাসফল ছবি। চলচ্চিত্রে অভিনয় করে অর্জন করেছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারে সেরা অভিনেত্রীর সম্মানও।

২০২১ সালে জন্মদিন উপলক্ষে প্রথম আলোকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে মৌসুমী বলেছিলেন, ‘দেশের একমাত্র নায়িকা যার বয়স সবাই জানে, সেটা হলো মৌসুমী। শুনি যে বাকি নায়িকাদের বয়স জানতে অনেকের ঘাম ছুটে যায়।

বিষয়টি এমন, সবাই যেন কিশোরী। বয়স আমি গণনার মধ্যে রাখি না। তাহলে মনে হবে, আমার আর প্রয়োজন নেই, মারা যাব। আমার কাছে বয়স শুধুই একটা সংখ্যা। যতক্ষণ দায়িত্বজ্ঞান আছে, কাজ করে যাব। ভেতরকার চঞ্চলতা একই রকম থাকবে। মনের বয়স বাড়তে না দিলেই হয়।’

সেই সাক্ষাৎকারে মৌসুমী জানিয়েছিলেন তাঁর আগামী দিনের পরিকল্পনা। সামনে আরও অনেক কিছুই করার আছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য দিই সামাজিক কাজকে। এটাতে আনন্দ পাই। পাশাপাশি রাজনীতি করতে চাই। আর ব্যবসা-বাণিজ্য তো জীবনেরই অংশ।’ রাজনীতিতে আরও সক্রিয় হতে চান? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেছিলেন, ‘ধীরে ধীরে সক্রিয় হতে চাই। সবার সঙ্গে চলব, ফিরব ও শিখব। একটা সময় দায়িত্ব নেওয়ার মতো অবস্থা যখন হবে, তখন হয়তো আরও সামনের দিকে পা বাড়াব। তবে এখনই সেসব চিন্তা নয়।’ তিনি জানান, রাজনীতিতে যাঁরা জ্যেষ্ঠ ও সক্রিয়, তাঁদের কথা ভিন্ন। কিন্তু তুলনায় যাঁরা নতুন, তাঁদের সঙ্গে তুলনা করলে অভিনয় তাঁকে অনেক প্লাস পয়েন্ট দেয়। তিনি বলেন, ‘সে জন্য আমার ইচ্ছা রাজনীতিতে আরও সক্রিয় হওয়া। তবে এটা কিন্তু সত্যি, কিছু পেতে হবে, এই চিন্তা আমার নেই। মানুষের জন্য কিছু করতে পারলেই আমার ভালো লাগবে।

এই মুহূর্তের স্বপ্ন কী জানতে চাইলে মৌসুমী বলেছিলেন, ‘সাধারণ সব স্বপ্ন। সন্তানদের বাইরে বড় স্বপ্নের মধ্যে মৌসুমী ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনকে অনেক দূর নিয়ে যাওয়ার ইচ্ছা। সুন্দর একটা বৃদ্ধাশ্রমও করতে চাই।

এগুলো করতে পারলে নিজেকে অনেক সফল মনে হবে। আর যদি না-ও করতে পারি, আমার অবর্তমানে কেউ না কেউ করবে।’

সন্তানদের প্রসঙ্গে মৌসুমী বলেন, ‘ফারদীন কিছু কাজ করেছে। আমরা তাকে উৎসাহ দিয়েছি। পরে আমরা দুজন বলেছি, প্রতিষ্ঠিতও হতে হবে। আমাদের দুজনের যা কিছু, সবই তো ওদের দুই ভাই–বোনের। ফারদীন সিনেমা নিয়ে পড়াশোনা করেছে, তাতে আমরা খুশি। এখন পারিবারিক ব্যবসা দেখাশোনা করছে। অভিনয় না করলেও মা-বাবার অভিনয়জীবনের যা কিছু আছে, সবকিছু ফারদীনকেই ধরে রাখতে হবে। আর মেয়ে ফাইজার ইচ্ছা পাইলট হবে। আমরা কিছু বলছি না। কারণ, তার চাওয়া আমাদের কাছে বড়। ফাইজা সিনেমার আশপাশেও নেই, ব্যবসাও পছন্দ করে না।’

প্রীতম হাসান। ছবি: শিল্পীর সৌজন্যে

‘ঢাকায় বেড়ে উঠলেও সব সময়ই লোকগান আমাকে টানত। আমাদের এই ছোট দেশে বিচিত্র লোকগান আছে। সেসব গানকে আধুনিকভাবে তুলে ধরতে চাই,’ প্রথম আলোকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলছিলেন তরুণ সংগীতশিল্পী, সংগীত পরিচালক ও অভিনয়শিল্পী প্রীতম হাসান।
কোক স্টুডিও বাংলার মঞ্চে ফজলু মাঝির ‘দেওরা’-কে তুলে এনেছেন প্রীতম; সংগীত পরিচালনার পাশাপাশি এই লোকগানে কণ্ঠও দিয়েছেন তিনি। গানটি প্রকাশের পাঁচ মাসের ব্যবধানে ইউটিউব ও স্পটিফাইয়ে প্রায় সাত কোটি বার শোনা হয়েছে। ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম ছাপিয়ে গানটি মানুষের মুখে মুখেও ছড়িয়ে পড়েছে।

প্রীতম হাসান
প্রীতম হাসান। ছবি: কবির হোসেন

লোকগানের সঙ্গে আধুনিক গানেও নিজেকে শাণিত করছেন প্রীতম হাসান। ‘লোকাল বাস’, ‘জাদুকর’, ‘বেয়াইনসাব’, ‘গার্লফ্রেন্ডের বিয়া’র মতো জনপ্রিয় গানে পাওয়া গেছে তাঁকে।
প্রায় আট বছরের ক্যারিয়ারে গানের ঝুলিকে সমৃদ্ধ করে প্রথমবারের মতো একক কনসার্টে আসছেন প্রীতম। আগামীকাল বৃহস্পতিবার রাজধানীর আন্তর্জাতিক কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় ‘দ্য নাইট অব প্রীতম হাসান’ কনসার্ট আয়োজন করছে ফনিক্স কমিউনিকেশন।

প্রীতমের সঙ্গে কথা হয় গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে। প্রথম আলোকে প্রীতম জানান, দু-তিন বছর ধরে এই কনসার্ট আয়োজনের পরিকল্পনা করছেন তাঁরা। নিজের গান নিয়ে অনুরাগীদের সামনে আসছেন তিনি। প্রীতম বলেন, ‘কনসার্টে আমরা শ্রোতাদের একটা অভিজ্ঞতা দেওয়ার চেষ্টা করছি। আর দশটা কনসার্টের চেয়ে এটা আলাদা হবে। যাঁদের হাত ধরে আমি এত দূর এসেছি, যাঁদের গান শুনে আমি বড় হয়েছি, তাঁদের নিয়েই এই কনসার্ট।’
এতে প্রীতম হাসান তো গাইবেনই। তাঁর জন্য গাইবেন পপ গানের কিংবদন্তি শিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদ, মমতাজ, রাফা, অর্ণব, হাবিব ওয়াহিদ, আরমীন মুসা, জেফার, মাশা ইসলাম, ব্ল্যাকজ্যাং, ইসলাম উদ্দিন পলাকার, ফজলু মাঝি ও র‍্যাপার সাফায়েত।
কনসার্টে পপ ও রক—দুই ঘরানার সংগীতের যোগসূত্র থাকছে। ‘আমি বহু রক গান শুনেছি। বিশেষ করে আমি রাফা ভাইয়ের গানের ফ্যান। আর পপ গানের কিংবদন্তি ফেরদৌস ওয়াহিদ আঙ্কেল, হাবিব ওয়াহিদ ভাই, আর্টিস্টিক শিল্পী হিসেবে অর্ণব ভাইকে আমি পেয়েছি। ভিন্ন ভিন্ন ঘরানার শিল্পীরা থাকছেন; আমার গানগুলোর নতুন ভার্সন নিয়ে আসছি,’ বলেন প্রীতম হাসান।

প্রীতম হাসান
প্রীতম হাসান। ছবি: শিল্পীর সৌজন্যে

রক কনসার্টের উন্মাদনার ভিড়ে হালে পপ গানের কনসার্ট খুব একটা দেখা যায় না। অনেকের মতো প্রীতমও মানছেন, রক কনসার্টের অভিজ্ঞতা ও আনন্দের মাত্রাটা ভিন্ন রকমের হয়। রক কনসার্ট দেখেই পপ কনসার্টের অনুপ্রেরণা পেয়েছেন তিনি। ভবিষ্যতে প্রতিবছর আরও বড় পরিসরে পপ কনসার্ট আয়োজনের ইচ্ছা রয়েছে প্রীতমের।
কার গান শোনেন ও পছন্দ করেন প্রীতম—এমন প্রশ্নের জবাবে হাবিব, রাফা, অর্ণব, বালাম, তাহসানের নাম নিয়েছেন তিনি। এর বাইরে তরুণদের মধ্যে মোহন শরীফ, আহমেদ হাসান সানী, জেফার, মাশা ইসলামের গান শোনেন তিনি।

প্রীতম হাসান
প্রীতম হাসান। ছবি: শিল্পীর সৌজন্যে

অভিনয়কেই এগিয়ে রাখলেন
সংগীতের সঙ্গে পায়ে পায়ে অভিনয়টাও চালিয়ে যাচ্ছেন প্রীতম হাসান। অভিনয়শিল্পী হিসেবে সমালোচকদের স্বীকৃতিও মিলেছে তাঁর। চরকির সীমিত দৈর্ঘ্যের কাহিনিচিত্র আড়াল-এ একজন মুয়াজ্জিনের চরিত্রে অভিনয় করে দর্শকমহলে আলোচিত হন তিনি। এতে অভিনয়ের জন্য মেরিল-প্রথম আলো সমালোচক পুরস্কার ২০২২–এ সেরা অভিনেতার পুরস্কারও পেয়েছেন প্রীতম।
‘জাদুকর’, ‘লোকাল বাস’-এর মতো বেশ কয়েকটি গানের ভিডিও চিত্রে মডেল হিসেবে দেখা গেছে তাঁকে। নুহাশ হুমায়ূনের ৭০০ টাকা, আদনান আল রাজীবের ইউটিউমারসহ বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে চরকির সিনেমা কাছের মানুষ দূরে থুইয়া; নির্মাতা শিহাব শাহীনের এই সিনেমায় প্রীতমের বিপরীতে অভিনয় করেছেন তাসনিয়া ফারিণ।
গান ও অভিনয়—দুটি একঙ্গে চালিয়ে যান কীভাবে? ‘গাওয়া ও সংগীত পরিচালনা একসঙ্গেই করি। গান করতে করতে ক্লান্ত হয়ে গেলে অভিনয় করি আবার অভিনয় করতে করতে ক্লান্ত হয়ে গেলে গান করি। এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় শিফট করি, এটাই আমার ভ্যাকেশন,’ বলেন প্রীতম।
দুইয়ের মধ্যে কোনটাকে এগিয়ে রাখবেন? প্রীতম বলেন, ‘অভিনেতা প্রীতমকে একটু এগিয়ে রাখতে চাই। সামনে ভালো সুযোগ ছাড়া গাওয়া ও সংগীত পরিচালনা করতে চাই না।’

বিচারক ও প্রকল্প প্রধানের সঙ্গে প্রতিযোগিরা। ছবি: চ্যানেল আইয়ের সৌজন্যে

দেশের অন্যতম রিয়েলিটি শো ‘চ্যানেল আই সেরা কণ্ঠ-২০২৩’–এর চূড়ান্ত পর্বে উঠেছেন ১৩ প্রতিযোগী। এর মধ্য থেকে বাছাই করা হবে সেরা তিনজনকে। পরবর্তী সময় এই প্রতিযোগীদের নিয়ে শুরু হবে চূড়ান্ত আসর। এবারের আসরে দেশ-বিদেশের ৩৫ হাজার প্রতিযোগী অংশ নেন।

এবারের আসরে বিশেষ বিচারক হিসেবে রয়েছেন উপমহাদেশের প্রখ্যাত সংগীতশিল্পী রুনা লায়লা। এ ছাড়া প্রধান দুই বিচারকের মধ্যে রয়েছেন রবীন্দ্রসংগীতশিল্পী রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা ও সংগীতশিল্পী সামিনা চৌধুরী। দর্শকদের ভোটে ও বিচারকদের রায়ে চূড়ান্ত পর্বে যাচ্ছেন সিফাত, টুশি, আলাউদ্দিন, মাইশা, রনি, আরাফাত, মহারাজা, সামির, রিফাত, শুভ, জারিন, অর্চি ও পিজু।

কোরীয় অভিনেতা আন বো হিয়ান ও ব্ল্যাক পিঙ্কের গায়িকা জিসু। ছবি: আইএমডিবি

কোরীয় অভিনেতা আন বো হিয়ানের সঙ্গে ব্ল্যাক পিঙ্ক তারকা জিসুর প্রেমের সম্পর্কে ইতি ঘটেছে। প্রেমের সম্পর্কের খবর প্রকাশ্যে আসার দুই মাসের ব্যবধানে বিচ্ছেদের পথে হাঁটলেন তাঁরা। খবর ইয়োনহ্যাপের

তবে বিচ্ছেদের কারণ এখনো জানা যায়নি। চলতি বছরের আগস্টে তাঁদের প্রেমের গুঞ্জন ছড়িয়েছিল সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। বিষয়টি নিয়ে আলোচনার মধ্যে দুজনের এজেন্সি প্রেমের বিষয়টি নিশ্চিত করেছিল। তার মাস দুয়েক পরই বিচ্ছেদের খবর এল।

জিসু
জিসু। ছবি: ইনস্টাগ্রাম

ক্যারিয়ারের শুরুতে অভিনয়ে পাওয়া গেছে জিসুকে; ‘দ্য প্রডিউসারস’ সিরিজে ক্যামিও চরিত্রে তাঁকে দেখা গেছে। পরের বছর ২০১৬ সালে তাঁর গানের ক্যারিয়ার শুরু হয়।
এ বছর মার্চে ব্ল্যাক পিঙ্কের বাইরে জিসুর প্রথম একক অ্যালবাম ‘মি’ মুক্তি পায়। মাত্র দুই দিনের কম সময়ে এটি এক মিলিয়নের বেশি বিক্রি হয়। বেস্ট সেলিং অ্যালবামের তালিকায় জায়গা করে নেয়।

অভিনেতা ও মডেল আন বো হিয়ান
অভিনেতা ও মডেল আন বো হিয়ান। ছবি: আইএমডিবি

কোরীয় অভিনেতা, মডেল ও টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব আন বো হিয়ান বক্সিংয়ে দক্ষ হলেও ইচ্ছা ছিল মডেল হওয়ার। ১৮ বছর বয়সেই মডেলিংয়ে নাম লেখান। ২০১৪ সাল থেকে তিনি অভিনয় শুরু করেছেন।
‘ডিসেনড্যান্টস অব দ্য সান’, ‘হার প্রাইভেট লাইফ’, ‘মাই নেম’ সর্বশেষ মুক্তি পাওয়া ‘সি ইউ ইন মাই নাইনটিন্থ লাইফ’সহ বেশ কিছু কাজে প্রশংসা কুড়িয়েছেন।

আশিকুজ্জামান টুলু, সামিনা চৌধুরী ও আসিফ ইকবাল

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বেশ সক্রিয় কানাডাপ্রবাসী সংগীতশিল্পী আশিকুজ্জামান টুলু। প্রায় নতুন এবং পুরোনো ছবি শেয়ার করেন। বিভিন্ন বিষয়ে স্মৃতিচারণা করেন। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তিনি কণ্ঠশিল্পী সামিনা চৌধুরীর একটি গান ফেসবুকে শেয়ার করেছেন। গানটি গল্প এবং নিজের অনুভূতি জানিয়েছেন।
ফেসবুকে আশিকুজ্জামান টুলু লিখেছেন, ‘যত দূর মনে পড়ে, যেদিন গানটা সামিনা এসে ভোকাল দিয়েছিল সাউন্ড গার্ডেন স্টুডিওতে। সম্ভবত গান টেক শেষ হওয়ার পর ও কেঁদেছিল। আসলে একজন প্রকৃত শিল্পী যখন শিল্পকর্মের সঙ্গে একেবারে মিশে যান, তখন নিজস্ব অস্তিত্ব কোথায় হারিয়ে যায় তা নিজেই বুঝতে পারে না। এটাই শিল্পের সঙ্গে একাত্মতা, এটাই আত্মাকে ছুঁয়ে যাওয়া বলে।’ স্মৃতিচারণার পাশাপাশি গানের কয়েকটি লাইন শেয়ার করে নিজের অনুভূতিও প্রকাশ করেছেন টুলু।

ফেরদৌস বাপ্পী ও ফারহানা নিশো

অভিনয়, সংগীত, নৃত্য ও আবৃত্তি নিয়ে নানা ধরনের রিয়েলিটি শোর আয়োজন করেছে দেশের টেলিভিশন চ্যানেলগুলো। এসব আয়োজন থেকে উঠে আসা প্রতিযোগীদের অনেকে এরই মধ্যে প্রতিটি ক্ষেত্রে নিজেদের মেধা ও যোগ্যতার স্বাক্ষর রেখে চলেছেন। সে ধারাবাহিকতায় এবার যুক্ত হচ্ছে উপস্থাপক খোঁজার রিয়েলিটি শো। ‘আলো ছড়াবে উপস্থাপনায়’ শিরোনামের আয়োজনটি প্রচারিত হবে এনটিভিতে।

এ আয়োজনে উপস্থাপক খুঁজে বের করার প্রধান কাজটি করবেন দেশের জনপ্রিয় দুই উপস্থাপক ফেরদৌস বাপ্পী ও ফারহানা নিশো। দুজনই উপস্থাপনায় দুই দশকের বেশি সময় ধরে কাজ করছেন।

Scroll to Top